Floating Facebook Widget

অধিনায়ক হিসেবে ৫০ ওয়ানডে জয়ের সামনে দাঁড়িয়ে মাশরাফি বিন মুর্তজা - Deshi News

বৃহঃস্পতিবার মার্চ ২০২০দেশীনিউজশুক্রবার জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে সিরিজের শেষ ওয়ানডে। এই ম্যাচ অধিনায়ক হিসেবে মাশরাফির শেষ কি না, সেটি এখনো পরিষ্কার নয়। তবে অধিনায়ক মাশরাফি এ ম্যাচে অনন্য এক অর্জনের সামনে দাঁড়িয়ে। আর একটি ম্যাচ জিতলেই যে অধিনায়ক হিসেবে তিনি ৫০ ওয়ানডে জয়ের রেকর্ড নিজের করে নেবেন। এখন পর্যন্ত অধিনায়ক হিসেবে দেশের হয়ে সবচেয়ে বেশি ওয়ানডে জেতার রেকর্ড অবশ্য তাঁরই।

২০১০ সালে প্রথমবারের মতো বাংলাদেশ দলের অধিনায়কত্ব পেয়েছিলেন। কিন্তু হাঁটুর চোটে দলের বাইরে চলে যাওয়ায় কারণে অধিনায়কত্বটা সেভাবে করতেই পারেননি। ২০১৪ সালে ওয়ানডেতে অধিনায়কত্ব ফিরে পেয়েই সফল তিনি। নিজেকে নিয়ে গেছেন অন্য উচ্চতায়। ২০১৫ আর ২০১৯ বিশ্বকাপে দেশকে নেতৃত্ব দিয়েছেন। ৮৭টি ওয়ানডে ম্যাচে এখন পর্যন্ত জিতেছেন ৪৯টি।

অধিনায়ক হিসেবে সবচেয়ে বেশি ওয়ানডে জয়ে মাশরাফির পর দ্বিতীয় স্থানে আছেন হাবিবুল বাশার। তবে বেশ পিছিয়েই আছেন বর্তমান নির্বাচক। ক্যারিয়ার শেষ করার আগপর্যন্ত অধিনায়ক হিসেবে দেশকে ২৯টি ওয়ানডে জয়ে নেতৃত্ব দিয়েছিলেন হাবিবুল। ২০০৪ থেকে ২০০৭ সাল পর্যন্ত ৬৯ ম্যাচে বাংলাদেশকে নেতৃত্ব দিয়েছিলেন তিনি। সাকিব আল হাসান ৫০ ম্যাচে নেতৃত্ব দিয়ে জিতেছেন ২৩ ম্যাচ। এ ছাড়া ওয়ানডে জয়ী অধিনায়কদের মধ্যে আছেন মুশফিকুর রহিম (১১ ম্যাচ), মোহাম্মদ আশরাফুল (৮ ম্যাচ), খালেদ মাসুদ (৪ ম্যাচ), আমিনুল ইসলাম (২ ম্যাচ) ও আকরাম খান (১ ম্যাচ)।

পাশাপাশি খালেদ মাহমুদ ১৫ ম্যাচ, গাজী আশরাফ হোসেন ৭ ম্যাচ, মিনহাজুল আবেদীন ২ ম্যাচ, নাঈমুর রহমান ৪ ম্যাচ, তামিম ইকবাল ৩ ম্যাচ ও রাজিন সালেহ ২ ম্যাচে দেশকে নেতৃত্ব দিয়ে একটি ম্যাচেও জয়ের মুখ দেখেননি।

তবে এমন রেকর্ড মাশরাফিকে খুব উচ্ছ্বসিত করছে না। ব্যক্তিগত অর্জনকে তিনি গৌণ করেই দেখতে চান, ‘ব্যক্তিগতভাবে আমি এটা নিয়ে খুব একটা ভাবছি না। দেশ যে এতগুলো ম্যাচ জিতেছে, আমার কাছে সেটিই বড় ব্যাপার। পরের ম্যাচটা আমার কাছে আর দশটা ম্যাচের মতোই।’

দেশীনিউজ/নূরে আলম

খেলাধুলা