Floating Facebook Widget

নির্বাচনী প্রচার শুরু ঢাকার দুই সিটিতে - Deshi News

১০ ফেব্রুয়ারী ২০১৯, রবিবারদেশীনিউজ: ঢাকা উত্তর ও দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে প্রার্থীদের প্রতীক বরাদ্দের মধ্য দিয়ে শুরু হলো আনুষ্ঠানিক প্রচার।রোববার সকালে দুই সিটির প্রার্থীদের মাঝে প্রতীক বরাদ্দ শুরু হয়।

এদিন ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র পদে উপনির্বাচনে পাঁচ প্রার্থীকে প্রতীক বরাদ্দ দেয়া হয়।

তারা হলেন- আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী আতিকুল ইসলাম (নৌকা), জাতীয় পার্টির শাফিন আহমেদ (লাঙ্গল), ন্যাশনাল পিপলস পার্টির (এনপিপি) মো. আনিসুর রহমান দেওয়ান (আম), প্রগতিশীল গণতান্ত্রিক পার্টির (পিডিপি) শাহীন খান (বাঘ) এবং স্বতন্ত্র প্রার্থী মোহাম্মদ আবদুর রহিম (টেবিল ঘড়ি) প্রতীক পেয়েছেন।

একই সঙ্গে কাউন্সিলর পদে প্রার্থীদের মাঝে প্রতীক বরাদ্দ চলছে বলেও ডিএনসিসি ও ডিএসসিসির রিটার্নিং কর্মকর্তার কার্যালয় নিশ্চিত করেছে।

ডিএনসিসির রিটার্নিং কর্মকর্তা আবুল কাসেম বলেন, প্রতীক বরাদ্দ শেষে সব প্রার্থী নির্বাচনের আচরণবিধি মেনে আজ থেকেই প্রচারে অংশ নিতে পারবেন।

২৬ ফেব্রুয়ারি মধ্য রাত ১২টা পর্যন্ত প্রচার করা যাবে বলে জানান তিনি।

এর আগে শনিবার ছিল প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ দিন। এদিন মেয়র পদে উপনির্বাচন থেকে প্রার্থিতা প্রত্যাহার করেন জাতীয়তাবাদী গণতান্ত্রিক আন্দোলনের (এনডিএম) প্রার্থী ববি হাজ্জাজ।

এ ছাড়া ঢাকা উত্তর ও দক্ষিণ সিটির সম্প্রসারিত ওয়ার্ডগুলোতে নির্বাচন থেকে প্রার্থিতা প্রত্যাহার করে নিয়েছেন ৬৮ প্রার্থী।

ঢাকা উত্তর সিটির ২০টি সাধারণ ওয়ার্ডে ৪০ ও সংরক্ষিত ৬টি ওয়ার্ডে একজন এবং ঢাকা দক্ষিণ সিটির ১৮টি ওয়ার্ডে ২৬ ও সংরক্ষিত ৬টি ওয়ার্ডে একজন প্রার্থিতা প্রত্যাহার করেছেন।

ঢাকা উত্তর সিটির ৯ নম্বর ওয়ার্ডের উপনির্বাচনে একজন প্রার্থী প্রত্যাহার করায় অপর প্রার্থী মুজিব সরোয়ার মাসুম বিনাপ্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হতে যাচ্ছেন।

আগামী ২৮ ফেব্রুয়ারি ঢকার দুই সিটিতে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীদের মধ্যে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। দুই রিটার্নিং কর্মকর্তার কার্যালয় এসব তথ্য জানিয়েছে।

জানা গেছে, আনিসুল হক মারা যাওয়ায় ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র পদে উপনির্বাচন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। এ উপনির্বাচনে মনোনয়নপত্র দাখিল করেন আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী মো. আতিকুল ইসলামসহ ছয়জন।

যাচাই-বাছাইয়ে জাতীয় পার্টির মোহাম্মদ শাফিন আহমেদের মনোনয়নপত্র বাতিল হলেও পরে তিনি আপিলে প্রার্থিতা ফিরে পান। তবে এ নির্বাচন থেকে ববি হাজ্জাজ তার প্রার্থিতা প্রত্যাহার করায় আতিকুল ইসলামকে অপর চার প্রার্থীর সঙ্গে ভোটের মাঠে লড়তে হচ্ছে।

দেশীনিউজ/শহিদ উল্লাহ বাবলু


রাজনীতি