Floating Facebook Widget

জিদান আর ছয় মাস রিয়ালে ? - Deshi News

১০ জানুয়ারি ২০১৮,বুধবার,দেশীনিউজতাহলে কি শেষের ডাক শুনতে পেয়েছেন জিনেদিন জিদানও? ছয় মাস পর আর রিয়াল মাদ্রিদের কোচ থাকবেন না, এমনটাই মনে হচ্ছে তাঁর? ফরাসি কিংবদন্তির কথা শুনে সে রকম মনে হওয়াই স্বাভাবিক। ফ্রান্সের বর্ষসেরা কোচ নির্বাচিত হলেন মাত্রই। কিন্তু হাসিমুখ নেই জিদানের। কোচিং ক্যারিয়ারের শুরুতেই অবিশ্বাস্য সাফল্য পাওয়ার পর যে এখন মুদ্রার উল্টো পিঠটাও দেখতে শুরু করেছেন!

২০১৬ সালের জানুয়ারিতে মৌসুমের মাঝপথে রাফায়েল বেনিতেজ বরখাস্ত হওয়ার পর রিয়ালের দায়িত্ব পেয়েছিলেন জিদান। এরপর প্রায় দুই বছর তাঁর অধীনে স্বপ্নের মতো কাটিয়েছে রিয়াল। এই দুই বছরে জিতেছে একটি লা লিগা, দুটি চ্যাম্পিয়নস লিগ, দুটি ক্লাব বিশ্বকাপ, দুটি উয়েফা সুপার কাপ ও একটি স্প্যানিশ সুপার কাপ। 

কিন্তু সেই রিয়াল এই মৌসুমে হঠাৎ করেই যেন ছন্দহারা, একেবারে অচেনা। লিগে ১৭ ম্যাচে ৩২ পয়েন্ট নিয়ে পয়েন্ট তালিকার ৪ নম্বরে। ওদিকে ১৮ ম্যাচে ৪৮ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী বার্সেলোনা। ৩৯ পয়েন্ট নিয়ে দুইয়ে অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ, ৩৭ পয়েন্ট নিয়ে তিনে ভ্যালেন্সিয়া। মৌসুমের অর্ধেক না যেতেই ১৬ পয়েন্টের ব্যবধান বার্সার সঙ্গে! গত রোববার লিগে সেল্টা ভিগোর সঙ্গে ২-২ ড্রয়ের পর রিয়াল ডিফেন্ডার মার্সেলো পর্যন্ত বলেছেন, ‘মনে হচ্ছে, আমরা ডুবে যাচ্ছি।’ আর রিয়াল ডুবে গেলে কি জিদান কোচ হিসেবে থেকে যেতে পারবেন! 

যখন সুসময় চলছিল, তাঁর প্রশংসায় পঞ্চমুখ ছিলেন সবাই। ওই সময়েও পা মাটিতে রেখে জিদান বারবার বলে গেছেন, সবকিছুই ক্ষণস্থায়ী। খারাপ সময়ের জন্যও তৈরি থাকতে হবে। নিজেও তৈরি ছিলেন হয়তো, নইলে কি আর ওই কথা বলেন। তবে বাস্তবে খারাপ সময়ে কত রকম ঝাপটা আসতে পারে, সেটা বুঝতে পারছেন এখন। নইলে কি আর বলেন, ‘জিনেদিন জিদান এখন আর রিয়াল মাদ্রিদের খেলোয়াড় নয়। ওই জিদানের অস্তিত্ব নেই। এখন যে জিদান আছে, সে রিয়াল মাদ্রিদের কোচ। তাকে এই উত্থান-পতনের মধ্য দিয়েই ক্যারিয়ার গড়তে হবে। রিয়ালের খেলোয়াড় হিসেবে আমি যেমন সুরক্ষিত ছিলাম, কোচ হিসেবে তা নই।’ 

ওই সুরক্ষাটা নেই বলেই এই খারাপ সময়টা দীর্ঘস্থায়ী হলে যে তিনি রিয়ালের কোচ থাকতে পারবেন না, তাও ভালো জানা জিদানের। সে বাস্তবতা মেনে নিয়েই বলছেন, ‘আমি জানি, একটা সময় আসবে যখন আমি আর রিয়ালের কোচ থাকব না। সুতরাং যত দিন আছি, আমি সাফল্যের জন্য সর্বোচ্চটা করে যেতে চাই।’ 

আর কত দিন থাকতে পারবেন বলে মনে হচ্ছে? সরাসরি জবাব না দিলেও একটা আভাস কিন্তু দিয়েছেন জিদান, ‘আমি নিজেই নিজেকে বলি, যদি তোমার ১০ দিন বাকি থাকে, সেটাই সর্বোচ্চ কাজে লাগাও। যদি ৬ মাস হয়, তাহলে ওই ৬ মাসে সর্বোচ্চটা দাও। এর চেয়ে দূরের সময়ের কথা আমি ভাবি না। আমি জানি, ১০ বছর আমি রিয়ালের কোচ থাকব না।’ 

সময়টা যেহেতু জানেন জিদান, কী করতে হবে, সেটাও নিশ্চয়ই বুঝতে পারছেন। গোলডটকম।

দেশীনিউজ/এমআই

খেলাধুলা