Floating Facebook Widget

জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণে কাজে আসছেনা পরিবার পরিকল্পনা কর্মসূচি - Deshi News

১১ জুলাই ২০১৭,মঙ্গলবার,দেশীনিউজ: জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণে সরকারের অগ্রগতি প্রশংসনীয় হলেও আগের মত কাজে আসছে না পরিবার পরিকল্পনা কর্মসূচি। এর কারণ হিসেবে শহরাঞ্চলে এই কর্মসূচি বাস্তবায়নের ব্যার্থতাকে দায়ি করছেন জনসংখ্যা পর্যবেক্ষকরা। তারা বলছেন, একদিকে গ্রামে সচেতনতার অভাব তৈরী হচ্ছে অন্যদিকে গ্রাম ছেড়ে শহরে আসা মানুষেরা পাচ্ছে না পরিবার পরিকল্পনা গ্রহনের সুবিধা।

বিশ্বে প্রতি ১৪ মাসে প্রায় ১০ কোটি মানুষ বৃদ্ধি পাচ্ছে যার সিংহভাগই হচ্ছে আমাদের মত উন্নয়নশীল দেশে। বিশ্ব জনসংখ্যা দিবসের এবারের প্রতিপাদ্য 'পরিবার পরিকল্পনা দেশ ও জনগণকে ক্ষমতায়ন করে' যার লক্ষ্য ১২ কোটি অতিরিক্ত নারীকে ২০২০ সালের মধ্যে পরিবার পরিকল্পনার আওতায় নিয়ে আসা।

অতীতে মাঠ পর্যায়ের কর্মীদের বাড়ি বাড়ি গিয়ে পরিবার পরিকল্পনা গ্রহনে উদ্বুদ্ধ করার সুফল পাচ্ছে বাংলাদেশ। কিন্তু বর্তমানে গ্রামাঞ্চলে কমেছে সচেতনাতামূলক কার্যক্রম। মধ্যবিত্ত নিম্নমধ্যবিত্তরা ব্যাপকভাবে শহরমুখী হলেও পরিবার পরিকল্পনার কার্যক্রম শহরাঞ্চলে বরাবরের মত নাজুক বলে মত জনসংখ্যা পর্যবেক্ষকদের।

তারা বলেন, জন্মনিরোধকের দাম আমরা কমাতে পারছিনা। মানুষের ইচ্ছা থাকলেও তার ব্যবহারে যদি উচ্চমূল্য হয় তবে কোন ভাবেই তা কাজে আসবে না। দেশে মোট জনসংখ্যার ৩১ শতাংশ তরুণ। পাশাপাশি দেশের মানুষের গড় আয়ু বাড়ায় ক্রমাগতভাবে বাড়ছে ষাটোর্ধ্ব মানুষের সংখ্যা। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, এই বিপুল জনগোষ্ঠীকে কর্মসংস্থানসহ নানাভাবে কাজে লাগাতে না পারলে জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণ করে সুফল পাওয়া যাবে না।

অধ্যাপক এ কে এম নূর-উন-নবী বলেন, মেধা ও প্রশিক্ষণ দিয়ে যদি সঠিক কর্মসংস্থানের উপযোগী জনগোষ্ঠি তৈরি হলেই আমরা ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত রাষ্ট্রে পরিনত হব। জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণে স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ের সহায়তায় শিগগিরই শহরাঞ্চলে পরিবার পরিকল্পনার কাজ শুরুর আশ্বাস পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরের। এই দপ্তরের মহাপরিচালক বলেন, গ্রাম পর্যায়ে আমাদের স্যাটেলাইট ক্লিনিক রয়েছে। সেখানে কর্মরত আমাদের কর্মীরা ৫ দিনে ঘরে ঘরে যেয়ে কাজ করে। কাজ চলছে থেমে নেই।

বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরোর জরিপে, দেশের জনসংখ্যা প্রায় ১৬ কোটি ১৭ লাখ। বিগত কয়েকবছরে জনসংখ্যা বৃদ্ধির হার ২ দশমিক ১ এ নামলেও তা ২ দশমিক শূন্যতে নিয়ে আসার পরিকল্পনা সরকারের। তবে এই বিপুল জনসংখ্যাকে জনশক্তিতে রুপান্তরে সরকারকে কার্যকরী ভূমিকা পালনের পরামর্শ বিশেষজ্ঞদের।

দেশীনিউজ/সোহেল রানা

স্বাস্থ্য ও রূপচর্চা